1. mumin.2780@gmail.com : admin : Muminul Islam
  2. Amenulislam41@gmail.com : Amenul :
  3. smking63568@gmail.com : S.M Alamgir Hossain : S.M Alamgir Hossain
পরমাণু বিষয় আলোচনায় বসতে প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র - আলোরদেশ২৪

পরমাণু বিষয় আলোচনায় বসতে প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র

  • প্রকাশিত : শনিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৭৫৪ বার দেখা হয়েছে

আলোরদেশ২৪ ডেস্ক নিউজ।।
বিশ্বের পারমাণু শক্তিধরে দেশের মধ্যে অন্যতম মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি বলেছেন, ইরানের সঙ্গে ২০১৫ইং সালে পরমাণু সমঝোতায় স্বাক্ষরকারী দেশগুলোর সঙ্গে ফের আলোচনায় বসার জন্য প্রস্তুত রয়েছে তার দেশ। দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প একতরফা ভাবে বের হওয়ার প্রায় তিন বছর পর এ ঘোষণা দিলেন যুক্তরাষ্ট্রের এই নতুন প্রেসিডেন্ট। 

আজ (২০শে ফেব্রুয়ারী) শনিবার পার্সটুডের এক প্রতিবেদনের মাধ্যমে এ তথ্যটি জানা যায় ।

গত (১৯শে ফেব্রুয়ারী) শুক্রবার মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ওয়াশিংটন থেকে যুক্ত হয়ে বক্তব্যে জো বাইডেন প্রশাসনের এ প্রস্তুতির বিষয়ে জানান তিনি। এসময় বলেন যে, তবে ইরান সংক্রান্ত বিষয়ে ফের আলোচনায় বসতে প্রস্তুত আছে তার প্রশাসন। বিশ্বে পরমাণু সমঝোতাকে ফের পুনরুজ্জীবিত করে তোলার জন্য জো বাইডেন এই বিষয়ে আলোচনা করার ঘোষণা দিলেও বিষয়টির বিস্তারিত কোন দিক-নির্দেশনা বা রোড-ম্যাপ প্রদর্শন করতে পারেননি বাইডেন।

তবে ২০১৮ইং সালের মে মাসে ডোনাল্ড ট্রাম্প একতরফাভাবে পরমাণু সমঝোতা থেকে বের হওয়ার পর ভবিষ্যৎ অনিশ্চয়তায় পরে এ আন্তর্জাতিক চুক্তির বাকি দেশগুলো। কেননা, ইউরোপীয় দেশগুলো আমেরিকাকে ছাড়াই চুক্তিটি বাস্তবায়ন করার আশ্বাস দিলেও তেহরানকে তা বাস্তবে দেখাতে ব্যর্থ হয়। ইরানও ধৈর্য ধরে ২০১৯ইং পর্যন্ত থেকে ধীরে ধীরে প্রতিশ্রুতি থেকে বের হচ্ছে ।

বর্তমানে বাইডেন সরকার ক্ষমতায় আসার পর ইরানকে পুরোপুরি পরমাণু সমঝোতায় ফিরে আসতে বললে জানায়, ওয়াশিংটন তেহরানের ওপর থেকে পুরোপুরিভাবে নিষেধাজ্ঞা তুলে না নেয়া পর্যন্ত এ সমঝোতা বাস্তবায়নে তাদের ফিরে আসা সম্ভব নয়। তবে যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা তুলে নিলে দ্রুত সময়ের মধ্যে পরমাণু সমঝোতায় ফিরবে বলেও জানিয়েছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট।

শেয়ার..

আরো সংবাদ পড়ুন...
© ২০২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | আলোর দেশ ২৪ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Developed By Radwan Ahmed