1. mumin.2780@gmail.com : admin : Muminul Islam
  2. Amenulislam41@gmail.com : Amenul :
  3. smking63568@gmail.com : S.M Alamgir Hossain : S.M Alamgir Hossain
কমলগঞ্জে ছোট ভাইয়ের কোদালের আঘাতে আহত বড় ভাইয়ের মৃত্যু - আলোরদেশ২৪

কমলগঞ্জে ছোট ভাইয়ের কোদালের আঘাতে আহত বড় ভাইয়ের মৃত্যু

  • প্রকাশিত : মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৬২৯ বার দেখা হয়েছে

কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি॥ মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে জমিসংক্রান্ত বিরোধে ছোট ভাইয়ের কোদালের আঘাতে আহত বড়ভাই কৃঞ্চ কান্ত সিংহ (৫৫) মারা গেছেন।

গত সোমবার (৩০শে নভেম্বর) রাতে সিলেট ওসমানী মেডিকেল হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। গত ২৬শে নভেম্বর দুপুরে কালারায়লি গ্রামে হামলার ঘটনা ঘটে।ঘটনার পর থেকে ছোট ভাই স্বপরিবারে পলাতক। এ ঘটনায় কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে ছোট ভাই লাল মোহন সিংহ সাথে জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলছিল বড় ভাই কৃঞ্চ কান্ত সিংহের।

গত বৃহস্পতিবার সকালে বাড়ির পাশের জমিতে সবজি ক্ষেত পরিচর্যার জন্য গেলে কৃঞ্চ কান্ত সিংহকে কোদাল দিয়ে মাথায় আঘাত করে ছোট ভাই লাল মোহন সিংহ। এতে কৃষ্ণ কান্ত গুরুতর আহত হন। গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে কমলগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নেওয়া হয়। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল হাসপাতালে পাঠানো হয়। ওই রাতেই তাকে আইসিইউতে নেওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার রাত ৮টায় তার মৃত্যু হয়। ঘটনায় পর থেকে ছোট ভাই লাল মোহন সিংহ স্বপরিবারে পলাতক রয়েছেন। লাল মোহন কুলাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে ডুপ্লিকেটিং অপারেটর পদে চাকরি করেন।নিহতের মেয়ে রুমা সিনহা কান্নাজড়িত কন্ঠে বলেন, ‘আমার বাবাকে কাকা পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছেন। আমি হত্যাকারীর বিচার চাই। পরিবারে পক্ষ থেকে কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।’স্থানীয় ইউপি সদস্য লিয়াকত আলী বলেন, ‘জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহতের লাশ সৎকার করা হয়েছে।’কমলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আরিফুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের চেষ্টা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় নিহতের মেয়ে বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন।’

শেয়ার..

আরো সংবাদ পড়ুন...
© ২০২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | আলোর দেশ ২৪ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Developed By Radwan Ahmed