1. mumin.2780@gmail.com : admin : Muminul Islam
  2. Amenulislam41@gmail.com : Amenul :
  3. rajubdmmail01@gmail.com : A Haque Raju : A Haque Raju
  4. smking63568@gmail.com : S.M Alamgir Hossain : S.M Alamgir Hossain
দেশে ১৬ লাখটন চাল নষ্ট হয় বছরে : সাধন চন্দ্র মজুমদার - আলোরদেশ২৪
সংবাদ শিরোনাম :
স্ত্রীর সঙ্গে মনোমালিনে বিষপানে আত্মহত্যা হিরো আলম নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখ্যান করলেন কমলগঞ্জে জুয়ারিদের হামলায় আহত পুলিশসহ ৫ আটক ৫ শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবের সভাপতি বিশ্বজ্যোতি ও সাধারণ সম্পাদক ইমাম হোসেন প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে শীতবস্ত্র বিতরণ করলেন উপাধ্যক্ষ ড. মোঃ আব্দুস শহীদ এমপি কমলগঞ্জে চলন্ত ট্রেনের নিচে ঝাপ দিলো তরুণী কমলগঞ্জে বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান টি২০ ক্রিকেট চ্যাম্পিয়ানশিপস এর উদ্বোধন কমলগঞ্জে শাহজালাল মর্ণিং স্কুলের উদ্বোধন কমলগঞ্জ প্রেসক্লাবে কমলগঞ্জ প্রবাসী কল্যাণ ঐক্য পরিষদের আর্থিক অনুদান প্রদান শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবে উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণে করলেন ড.মো: আব্দুস শহীদ এমপি

দেশে ১৬ লাখটন চাল নষ্ট হয় বছরে : সাধন চন্দ্র মজুমদার

  • প্রকাশিত : বুধবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ১৮৯ বার দেখা হয়েছে


অনলাইন ডেস্ক নিউজঃ
বলিউড কাঁপানো অসংখ্য নায়িকা ভারতে জন্ম নয়
মাননীয় খাদ্যমন্ত্রী বাবু সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেছেন, দেশে বছরে চার কোটি টন ধান ক্রাসিং হয়। মিল মালিকদের হিসাবে, চাল চিকন করতে গিয়ে ৪ থেকে ৫ শতাংশ হাওয়া হয়ে যায়। সেই হিসাবে বছরে ১৬ লাখ টন চাল নষ্ট হয়ে যায়। এটা না করলে বিদেশ থেকে হয়তো চাল আমদানি করা লাগতনা।


গেইন ও হার্ভেস্টপ্লাসের সহযোগিতায় গতকাল দুপুরে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে পর্যটন কনফারেন্স হলে খাদ্য অধিদপ্তর আয়োজিত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন যে, বায়োফর্টিফায়েড জিংক রাইসের মাধ্যমে দেশের মানুষের জিংকের ঘাটতি পূরণ সম্ভব। পুষ্টিহীনতা দূর করতে জিংকসমৃদ্ধ ধানের আবাদ বাড়াতে কৃষকদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। এ ছাড়া জিংকসমৃদ্ধ চালে ভোক্তাকে আকৃষ্ট করতে গণমাধ্যমকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি। 

বাবু সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন যে, আজকাল আমরা রাসায়নিকভাবে তৈরি করা জিংক খাচ্ছি; কিন্তু ভাতের মাধ্যমে যে এ উপাদানটি আমরা প্রাকৃতিকভাবে পেতে পারি, তা জানি না।

এবিষয়ে জনসচেতনতা তৈরি করা দরকার। তিনি আরও বলেন যে, দেশের মিল মালিকরা ভোক্তাদের চাহিদা অনুযায়ী চিকন চাল বাজারে সরবরাহ করে থাকে। কারণ গ্রাহকরা জিংক চালের জন্য উৎসাহ দেখান না এবং কৃষকরাও এই ধান চাষ করতে আগ্রহী হন না। কারণ জিংকসমৃদ্ধ ধানের চাল একটু মোটা হয়ে থাকে। গ্রাহক চিকন আর চকচকে চাল পছন্দ করে। সাধারণ চালেও পুষ্টি থাকে, তবে চাল চিকন করতে গিয়ে পুষ্টির অংশ ছেঁটে


এবিষয়ে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ ইসমাইল হোসেনের সভাপতিত্বে খাদ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. সাখাওয়াত হোসেন, ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক মো. শাহজাহান কবীর, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বেনজির আহম্মদ, হার্ভেস্টপ্লাসের কান্ট্রি ডিরেক্টর এ কে এম খায়রুল বাশার, গ্লোবাল অ্যালায়েন্স ফর ইমপ্রুভড নিউট্রিশনের (গেইন) কান্ট্রি ডিরেক্টর রুদাবা খন্দকার অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন।

অনুষ্ঠানে বায়োফর্টিফায়েড জিংক রাইস উৎপাদন, প্রক্রিয়াজাতকরণ ও বাজারজাতকরণে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি
হিসেবে ১১ জন কৃষক, তিনজন রাইস মিলার এবং খাদ্য বিভাগের ১০ কর্মকর্তাকে পুরস্কার দেওয়া হয়।

শেয়ার..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন...

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | আলোর দেশ ২৪ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Developed By Radwan Ahmed