1. mumin.2780@gmail.com : admin : Muminul Islam
  2. Amenulislam41@gmail.com : Amenul :
  3. smking63568@gmail.com : S.M Alamgir Hossain : S.M Alamgir Hossain
তিস্তার পানি কমলে তিস্তাপাড় ভাঙনের আতঙ্ক - আলোরদেশ২৪
সংবাদ শিরোনাম :
কমলগঞ্জে মণিপুরী সমাজ কল্যাণ সমিতির নির্বাচন ১৪ই জুন কুয়েতে ভবনে আগুন মালিকদের লোভকে দুষলেন উপ-প্রধানমন্ত্রী কমলগঞ্জে আব্দুল গফুর চৌধুরী মহিলা কলেজে বার্ষিক মিলাদ মাহফিল কমলগঞ্জে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান কমলগঞ্জের ভানুবিলে কৃষক প্রজা আন্দোলন কমলগঞ্জে স্মার্ট ভূমিসেবা সপ্তাহের শুভ উদ্বোধন বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড কমলগঞ্জ উপজেলা ইউনিট এর অভিষেক কুমিল্লায় কোরবানি পশুর হাটের ইজারা নিয়ে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ কমলগঞ্জে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত-১ চা দিবসে চা’ শিল্প টিকিয়ে রাখতে হলে শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন করতে হবে

তিস্তার পানি কমলে তিস্তাপাড় ভাঙনের আতঙ্ক

  • প্রকাশিত : রবিবার, ২৭ আগস্ট, ২০২৩
  • ৯৭ বার দেখা হয়েছে

অনলাইন ডেস্ক নিউজ ::

আশুলিয়ায় র‍্যাবের অভিযানে গাঁজা সহ আটক-১

লালমনিরহাটে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল আর টানা কদিনের ভারি বর্ষণে সৃষ্ট বন্যা পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হয়েছে। তবে নদী ভাঙনের তীব্র আতঙ্ক ছাড়াও নানা ধরনের ভোগান্তিতে রয়েছেন তিস্তাপাড়ের মানুষ।

আজ (২৭শে আগস্ট) রবিবার সকাল থেকে ব্যারেজ পয়েন্টে পানি বিপৎসীমার ৪১ সে.মি. নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ফলে নদী তীরবর্তী নিম্নাঞ্চলের বসতবাড়ি থেকে পানি নামতে শুরু করেছে। কিন্তু এখনো তলিয়ে রয়েছে চরাঞ্চলের আমন ক্ষেত ও নদী তীরবর্তী নিম্নাঞ্চলের রাস্তাঘাট। ফলে এখনো পানিবন্দি প্রায় ৫ হাজার পরিবার। আর দেখা দিয়েছে বিশুদ্ধ পানি ও শুকনো খাবারের সংকট। চারপাশে পানি থাকায় গবাদিপশু নিয়েও চরম বিপাকে পড়েছেন তারা।

তবে জেলার পাটগ্রাম উপজেলার দহগ্রাম, হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী, সিংগীমারী ও সিন্দুর্না, আদিতমারী উপজেলার মহিষখোঁচা, লালমনিরহাট সদর উপজেলার খুনিয়াগাছ, রাজপুর ও গোকুন্ডা ইউনিয়নে নদীর তীরবর্তী এলাকার পরিবারগুলোর মাঝে বিরাজ করছে নদী ভাঙনের আতঙ্ক।

লালমনিরহাট সদর উপজেলার আফছার আলী জানান, পর পর কয়েকবার বন্যার কবলে পড়ে তার ক্ষেত নষ্ট হয়ে গেছে। আর চলতি বন্যায় চরাঞ্চলে থাকা তিন বিঘা জমির আমন ক্ষেত এখনো পানিতে তলিয়ে আছে। এখন আমন চারা সংকটে পড়েছেন তিনি। কীভাবে আবার আমন চারা রোপণ করবেন, তা নিয়ে চিন্তায় আছেন।

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ উল্যাহ জানান, বন্যা পরিস্থিতি মোকাবেলায় নগদ ১৩ লাখ টাকা, ৪৫০ মেট্রিক টন চাল ও দুই হাজার প্যাকেট শুকনো খাবার প্রস্তুত রয়েছে।

লালমনিরহাট পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী সুনীল কুমার জানান, ‘পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ব্যারাজের সবকটি (৪৪) গেট খুলে রাখা হয়েছে। আশা করা হচ্ছে, পানি ধীরে ধীরে কমে যাবে। এছাড়া নদীপাড়ের পরিস্থিতির খোঁজখবর সার্বক্ষণিক রাখা হচ্ছে।

শেয়ার..

আরো সংবাদ পড়ুন...
© ২০২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | আলোর দেশ ২৪ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Developed By Radwan Ahmed